সাম্প্রদায়িক হামলায় বাকৃবি সনাতন সংঘের প্রতিবাদ

  • 21 Oct
  • 01:56 PM

আতিকুর রহমান,বাকৃবি প্রতিনিধি 21 Oct, 21

শারদীয় দুর্গোৎসব এবং পরবর্তী সময়ে সারা দেশব্যাপী হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (বাকৃবি) সনাতন সংঘ। বৃহস্পতিবার সকাল ১০ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদীন মিলনায়তনের সামনে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

এসময় বক্তারা বলেন, সম্প্রতি সনাতন ধর্মালম্বীদের প্রধান ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দূর্গাপূজা চলাকালীন সময়ে সাম্প্রদায়িক উগ্রবাদী গোষ্ঠী গত ১৩ অক্টোবর ধর্মীয় অবমাননার অভিযোগে কুমিল্লা, নোয়াখালী, চাঁদপুর, ফেনী এবং পরবর্তীতে রংপুরের পীরগঞ্জসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটায়। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করে দেশকে অস্থিতিশীল করার জন্য একদল অপশক্তি দেশে তৎপর হয়ে আছে। তারই ধারাবাহিকতায় তারা দেশের বিভিন্ন স্থানে মন্দির ও প্রতিমা ভাংচুর, ঘরবাড়িতে অগ্নিসংযোগ ও লুটপাটসহ নিরীহ সনাতন ধর্মাবলম্বীদের উপর নির্মম অত্যাচার ও নিপীড়ন চালিয়েছে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগীরা তাদের সর্বস্ব হারিয়েছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত ঘটে যাওয়া এসব ন্যাক্কারজনক ঘটনার কোন সুষ্ঠ তদন্ত ও বিচার হয় নি।

তারা আরও বলেন, এ ঘটনা ঘটার পর দেশে সনাতন ধর্মাবলম্বী ও সাধারণ মানুষ খুবই আতঙ্কিত এবং উদ্বিগ্ন। তাই আমরা সনাতন সংঘ বাকৃবি থেকে এ সকল ন্যাক্কারজনক ঘটনার প্রতিবাদ ও নিন্দা জ্ঞাপন করছি। এসব ঘটনার সাথে যে বা যারা জড়িত তাদেরকে অনতিবিলম্বে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি প্রদানসহ বাংলাদেশের সকল মঠ, মন্দির ও সনাতন ধর্মাবলম্বীদের নিরাপত্তা জোরদার এবং তাদের ধর্ম পালনের উপযুক্ত পরিবেশ সৃষ্টির জন্য বর্তমান সরকারের কাছে জোর দাবি জানাচ্ছি।

বাকৃবি সনাতন সংঘের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ড. লাভলু মজুমদারের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন, বাকৃবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. সুবাস চন্দ্র দাস, প্যাথলজি বিভাগের অধ্যাপক ড. এ. এস. মাহফুজুল বারি, বিশ^বিদ্যালয়ের ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. এ. কে. এম জাকির হোসেন, সহযোগী ছাত্রবিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. মো. আজহারুল ইসলাম, প্রক্টর অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মহির উদ্দীন, ইন্টারন্যাশনাল ডেস্কের পরিচালক অধ্যাপক ড. মো. মাহফুজুল হক, প্রাণ রসায়ন ও অনুপ্রাণ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. চয়ন গোস্বামীসহ সনাতন ধর্মাবলম্বী শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীবৃন্দ।