প্রধান বিচারপতি ও রবিবার উপাচার্যের সৌজন্য সাক্ষাৎ

  • 13 Jan
  • 06:35 PM

মোঃ হাবিবুর রহমান, রবিবা প্রতিনিধি 13 Jan, 22

মাননীয় প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ ও শুভেচ্ছা বিনিময় করেন রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়, বাংলাদেশ (রবিবা)-এর উপাচার্য প্রফেসর ড. মোঃ শাহ্ আজম।

গত শনিবার (৮ জানুয়ারি) সাক্ষাতকালে তারা বিভিন্ন বিষয়ে মতবিনিময় করেন। মাননীয় প্রধান বিচারপতি, বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ঐতিহ্য নিয়ে প্রতিষ্ঠিত সংস্কৃতি পরিমন্ডিত বিশেষায়িত বিশ্ববিদ্যালয়টির সম্পর্কে আগ্রহ প্রকাশ করেন এবং এই বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান কার্যক্রম সম্পর্কে অবহিত হতে চান।

এর পরিপ্রেক্ষিতে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বিশ্ববিদ্যালয়ের অভিলক্ষ্য, সাম্প্রতিক কার্যক্রমসহ বিভিন্ন বিষয় তাঁকে অবগত করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের সেশনজট কাটিয়ে ওঠা, শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করা, অ্যাকাডেমিক উৎকর্ষবিধানসহ, শিক্ষাক্ষেত্রে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী, শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা পরিশ্রম করছে বলে মাননীয় ভাইস-চ্যান্সেলর জানান।

রবীন্দ্র বিশ্বিবদ্যালয়ের ইতিবাচক প্রচেষ্টা ও অগ্রগতির সংবাদে সন্তোষ প্রকাশ করে মাননীয় প্রধান বিচারপতি মহোদয় আশা ব্যক্ত করেন যে, শিক্ষা ও সংস্কৃতি চর্চায় রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে অবদান রাখবে। মাননীয় প্রধান বিচারপতি মনে করেন, মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় আইনশিক্ষা কার্যকর ভূমিকা রাখতে পারে। তাই রবীন্দ্র বিশ্বিবদ্যালয়ে আইন অনুষদ চালু করা যায় কি না তা ভাইস-চ্যান্সেলর মহোদয়কে ভেবে দেখতে অনুরোধ করেন।

রবীন্দ্র বিশ্বিবদ্যালয়ের উপাচার্য এ প্রসঙ্গে মাননীয় প্রধান বিচারপতি মহোদয়ের সঙ্গে সহমত পোষণ করেন। মাননীয় প্রধান বিচারপতি আইন অনুষদ চালু হলে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে এসে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য রাখার ইচ্ছা ব্যক্ত করেন। মাননীয় প্রধান বিচারপতি ও রবীন্দ্র বিশ্বিবদ্যালয়ের উপাচার্যের জন্মস্থান একই জেলায় হওয়ায় তাঁরা নানা বিষয়ে স্মৃতিচারণ করেন।